কলাপাড়ায় মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানির বিরুদ্ধে চার ভাই-বোনের পাল্টা সংবাদ সম্মেলন

0
110

রিমন সিকদার, কলাপাড়া

পটুয়াখালীর কলাপাড়ায় জালজালিয়াতির মাধ্যমে সম্পত্তি হাতিয়ে নেয়া, মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানী ও নির্যাতন নিপিড়নে এক ভাইয়ের বিরুদ্ধে সুবিচার চেয়ে সংবাদ সম্মেলন করেছেন আপন চার ভাইবোন। মঙ্গলবার (২ ফেব্রæয়ারী) কলাপাড়া সাংবাদিক ফোরাম কার্য্যালয় সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে অভিযুক্ত সাইদুর রহমান ফোরকান মৃধার ছোট ভাই রাজু মৃধা, কালাম মৃধা, বাচ্চ মৃধা ও বড় বোন জাহানারা বেগম এবং ভগ্নিপতি মিজানুর রহমান বলেন, উপজেলার ধানখালী গ্রামের মৃত দলিল উদ্দিন মৃধার বড় ছেলে উল্লেখিত সাইদুর রহমান ফোরকান মৃধা তার মাতা মৃত ফজিলাতুননেছার রেখে যাওয়া ১৬ একর ৭৭ শতাংশ জমি আত্মসাত করার জন্য বিভিন্ন জাল জালিয়াতি ও শঠতার আশ্রয় নিয়ে আপন ভাই বোনদের বিরুদ্ধে নানা রকম ষড়যন্ত্র করে আসছে। তিনি তাঁর আপন বোন জাহানারা বেগমকে ওয়ারিশ বাদ দিয়ে ভুয়া ওয়ারিশ সার্টিফিকেট দিয়ে নিজ নামে সম্পত্তি রেকর্ড করে নিয়েছেন। তিনি তাঁর আপন ভাই রাজু মৃধাকে আইনগত ভাবে ফঁসানোর উদ্দেশ্যে নানা রকম ভুল বুঝিয়ে জালজালিয়াতির মাধ্যমে একটি ভুয়া জমা খারিজ খতিয়ান সৃষ্টি করিয়া ০-৩৩ শতাংশ জমি অন্যত্র বিক্রি করিয়ে বিক্রিত জমির টাকা তিনি আত্মসাত করেন। যার খতিয়ান নং ১৫৯। মৌজা-ধানখালী। পরবর্তীতে বিষয়টিবুজতে পেরে আইনগত জটিলতা থেকে মুক্ত থাকর জন্য রাজু মৃধা উক্ত জমি পুনরায় নিজ টাকায় ফেরত আনেন। সংবাদ সম্মেলনে তাঁরা আরও বলেন, উক্ত ফোরকান মৃধা এবং তাঁর পুত্র পাভেল মৃধার নিকট কালাম মৃধা, রাজু মৃধা ২ একর ৯০ শতাংশ জমি বিক্রি করেন। যা পরবর্তিতে ফেরৎ দেয়ার কথা ছিল এবং বিক্রিত জমির টাকা ফেরৎ নিয়ে বিএস জরিপ কালাম মৃধা, রাজু মৃধার নামে করার পরেও উক্ত জমির দলিল ফেরৎ না দিয়ে জোড় জুলুমে জমি ভোগ দখল করতেছে। কালাম মৃধা ও রাজু মৃধা জমিতে গেলে তারা বিভিন্ন রকম হুমকী ও হামলা, মামলা করে নানা রকম হয়রানী করে আসছে। এছাড়াও আমাদের ভোগদখলীয় জমাজমি সরকার অধিগ্রহণ করায় আমরা যাতে আমাদের ন্যার্য পাওনা অধি গ্রহনের টাকা তুলতে না পারি সে জন্য তিনি অন্যায়ভাবে অভিযোগ দিয়ে রেখেছে। তাঁরা আরও বলেন, তিনি এবং তাঁর ছেলে ফজলুল করিম পাভেল মৃধা এলাকায় প্রভাবশালী হওয়ায় সর্বক্ষেত্রে আমাদের উপর অন্যায় অত্যাচার চালিয়ে আসছে এবং সমাজে আমাদেরকে হেয় করার জন্য পায়তারা চালাচ্ছে। এরই ধারাবাহিকতায় গত ১ ফেব্রæয়ারী অসত্য, বানোয়াট, মনগড়া ও বিভ্রান্তিকর তথ্য দিয়ে একটি সংবাদ সম্মেলন করে, আমাদের বিরুদ্ধে ভিত্তিহীন অভিযোগ করে রাজু মৃধা এবং তাঁর ছেরে সংবাদকর্মী এস এম ইলিযাস জাবেদ নাকি কলাপাড়া পৌর শহরে অবস্থিত পার্সের দোকানে এসে বিভিন্ন দেশীয় অস্ত্র সস্ত্রসহ হামলা করে। বিষয়টি সম্পূর্ন মিথ্যা বলে তারা দাবী করে বলেন, তাদের দোকানে এ ধরনের কোন হামলার ঘটনা ঘটে থাকলে দোকানে থাকা সিসি ক্যামেরায় রেকর্ড থাকত এবং আশেপাশের লোকজনসহ থানা পুলিশ জানত।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here