‘ভূমিহীনরা ভূমি পাবে, গৃহহীনরা ঘর’ -এমপি মহিব

0
5

এম সোহেল, রাঙ্গাবালী

পটুয়াখালী-৪ আসনের এমপি মহিব্বুর রহমান মহিব বলেছেন, ‘বর্তমান সরকারের আমলে ভূমিহীনরা ভূমি পাবে, গৃহহীনরা পাবে ঘর।’ মঙ্গলবার বেলা ১১ টায় পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালী উপজেলার চরমোন্তাজ ইউনিয়নে দুস্থ-অসহায় ভূমিহীনদের মাঝে খাস জমি বিতরণের বাছাই কার্যক্রমের সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।
চরমোন্তাজ এ ছত্তার মাধ্যমিক বিদ্যালয় মাঠে আয়োজিত সভায় তিনি আরও বলেন, ‘মূলত আমি এসেছি, এখানে গরীব মেহনতি ভূমিহীনদের মাঝে সঠিকভাবে জমি বন্টন করার জন্য এবং গৃহহীনদের ঘর দেওয়ার ব্যবস্থা করার জন্য। আসলে ভূমিহীনদের খাস জমি দেওয়ার কার্যক্রমে সাধারণত এমপিরা আসেন না। কিন্তু আমার মনে হয়েছে যে, এটা নিয়ে একটা বিশাল জালিয়াতি চক্র হয়। কোন রকম জালিয়াতি ও ঘুষ-দুর্নীতি ছাড়া তারা যাতে ভূমি পায়, এজন্য আমি নিজে উপস্থিত থেকে ভূমিহীনদের মাঝে জমি দেওয়ার জন্য এসেছি। আশা করি আপনারা ঘুষ-বাণিজ্য ছাড়া প্রকৃত ভূমিহীন এবং যারা এই এলাকার স্থায়ী বাসিন্দা তারাই খাস জমি বন্দোবস্ত পাবেন।’
আওয়ামী লীগ সরকারের আমলে সারাদেশের মত রাঙ্গাবালীতেও উন্নয়নের ধারাবাহিকতা অব্যাহত আছে উল্লেখ করে এমপি মহিব বলেন, ‘চরমোন্তাজ ইউনিয়নে আরও অনেক কাজ হবে। বিশেষ করে সোনারচরকে আন্তর্জাতিক মানের পর্যটন কেন্দ্র করার জন্য আমরা কাজ করে যাচ্ছি। সোনারচর এবং আন্ডারচর যাতে রেস্টহাইজ হয়, এজন্য আমি ডিও লেটার দিয়েছি। রাঙ্গাবালী উপজেলার জন্য আমি ৩০০ কোটি টাকার প্রস্তাবনা সরকারের কাছে পেশ করেছি। শিগগরই বিদ্যুতের আলোয় আলোকিত হবে রাঙ্গাবালী। সে কাজ দ্রুত গতিতে চলছে।’
এ সভায় উপস্থিত ছিলেন, কলাপাড়া মহিলা আওয়ামী লীগের আহ্বায়ক এমপিপত্মী অধ্যক্ষ ফাতেমা আক্তার রেখা, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মাশফাকুর রহমান, রাঙ্গাবালী থানার ওসি দেওয়ান জগলুল হাসান, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাইদুজ্জামান মামুন, চরমোন্তাজ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি একে সামসুদ্দিন আবু মিয়া, সাধারণ সম্পাদক ও চরমোন্তাজ ইউপি চেয়ারম্যান হানিফ মিয়া, এমপির ব্যক্তিগত সহকারী তরিকুল ইসলাম মৃধা, রাঙ্গাবালী প্রেস ক্লাবের সভাপতি কামরুল হাসান, সাধারণ সম্পাদক এম সোহেল, উপজেলা যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মশিউর রহমান শিমুল, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি কামরুজ্জামান শিবলী, সাধারণ সম্পাদক আশিকুর রহমান উজ্জ্বল ও উপজেলা শ্রমিকলীগের আহ্বায়ক রওশন মৃধা প্রমুখ।

SHARE

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here