মানবেতর জীবন যাপন করছে ভোলা পলিটেকনিক ইনস্টিউটের শিক্ষক ও কর্মচারীরা

0
12

এম এ অন্তর হাওলাদার, বোরহানউদ্দিন

ভোলা পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের অধ্যক্ষ অনুপস্থিত থাকার কারনে অত্র কলেজের ননটেক শিক্ষক মাস্টাররোল ও চতুর্থ শ্রেণির কর্মচারীরা বেতন-ভাতা তুলতে না পেরে করোনা সংকটে এবং পবিত্র মাহে রমজান মাসে পরিবার পরিজন কে কষ্টে জীবন-যাপন করছেন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক সত্বে একজন ননটেক শিক্ষক জানান, অধ্যক্ষ মহোদয়ের অনুপস্থিতির কারণে আমরা মার্চ ও এপ্রিল মাসের বেতন তুলতে পারিনি। মে মাসের বেতন বোনাস তুলতে পারবো কিনা জানি না। বেতনের টাকা দিয়েই সংসার চলে। খুব কষ্টে আছি। মাস্টার রোল ও চতুর্থ শ্রেণির কর্মচারীদের অবস্থা আরো করুন বলে জানান এ শিক্ষিক ।

সূত্রমতে জানা গেছে, ২০মার্চ, ২০২০ তারিখ থেকেই কর্মস্থলে নেই এ পলিটেকনিকের অধ্যক্ষ ইঞ্জিনিয়ার মোঃ তাজুল ইসলাম। করোনার এ দুঃসময়ে সরকারি কর্মকর্তাদেরকে কর্মস্থলে থেকে সরকারি কাজে সহযোগীতা করার প্রজ্ঞাপন ও নির্দেশনা থাকলেও তিনি ২০ মার্চ থেকে রংপুরে নিজের বাড়িতে অবস্থান করছেন।এর ফলে সৃষ্টি হয়েছে প্রতিষ্ঠানের কর্মচারীদের এ বেতন জটিলতা।

এদিকে ভোলা পলিটেকনিকের অধ্যক্ষ ইঞ্জিনিয়ার মোঃ তাজুল ইসলামের অফিস সহায়ক মিজানুর রাহমান (যিনি বেতন-বিলের কাজ করেন) তিনি জানান, “অধ্যক্ষ স্যারের অনুপস্থিতির কারণে ২ মাসের বেতন দেওয়া সম্ভব হয় নি। তবে বেতন দেওয়ার জন্য আমরা চেষ্টা করছি”।

এ ব্যাপারে রংপুরে অবস্থানরত ভোলা পলিটেকনিকের অধ্যক্ষ ইঞ্জিনিয়ার মোঃ তাজুল ইসলামের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করলে তিনি তার বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, আমি এখানে থেকেই সব কিছুর ব্যবস্থা করছি। এখান হতে ব্যাংক থেকে টাকা পাঠানোর কাজ করছি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here