চরফ্যাশনে আম্পানের প্রভাবে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের মাঝে এমপি জ্যাকবের পক্ষে ত্রাণ বিরতণ

0
2

কে হাসান সাজু, চরফ্যাশন

ঘূর্ণিঝড় আম্পানের প্রভাবে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের মাঝে যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি আবদুল্লাহ আল ইসলাম জ্যাকব এমপির পক্ষে ত্রাণ বিরতণ করা হয়েছে। বৃহম্পতিবার বেলা ১১টায় চরমানিকা ভেঁড়ীবাধ এলাকায় যাদের ঘর বিধ্বস্ত হয়েছে। ওই সকল ২শ‘ পারিবারের বাড়ী বাড়ীতে গিয়ে এই সকল ত্রাণ সামগ্রী করা হয়। চরফ্যাশন উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি হায়াত আলী চৌধুরী রিজভী, সাধারণ সম্পাদক আল আমীন মুন্সি ও শরিফুল ইসলাম উপস্থিত ছিলেন।

বুধবারে রাতে চরফ্যাশনের উপর দিয়ে ঘূর্ণিঝড় আম্পান বয়ে যাওয়া বিছিন্ন দ্বীপ ঢালচর, কুকরি-মুকির ও মজিব নগর এলাকাসহ প্রায় অর্ধশতাধিক কাঁচা ঘরবাড়ী নষ্ট হয়েছে। চরফ্যাশন উপজেলা কৃষি অফিস সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার মুগ, মরিচ, গ্রীস্ফ কালীন শাক সবজিসহ প্রায় ৩শ ৭০ হেক্টর জমির ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

বিছিন্ন দ্বীপ ঢালচর ইউপির চেয়ারম্যান আবদুস ছালাম হাওলাদার বলেন, তার এলাকার ৫হাজার লোক চরফ্যাশনের মূল ভূখন্ডের দক্ষিণ আইচার চরমানিকায় আনা হলেও বাকী ৫হাজার লোকের জন্যে মাত্র ২টি সাইক্লোন সেল্টার ছিল। ফলে অধিকাংশ পরিবার ছিল পনির ও বাতাসের মধ্যে। রাতে খাবার জুটেনি ওই সকল পরিবারের মাঝে। রাতে আশ্রয়ন কেন্দ্রের অবস্থানকৃতদের মাঝে শুকনো খাবার বিতরণ করা হয়। সরকারি ভাবে ২শ‘ কেজি চাল ও ৭লাখ টাকা বরাদ্দ হয়েছে বলে জানা গেছে। চরকুকরি মুকরির চেয়ারম্যান আবুল হাসেম মহাজন নিজ এলাকাতেই অবস্থান করেছেন। তিনি বুধবার রাতে সাধারণ মানুষকে আশ্রয়ন কেন্দ্রে নিয়ে তাদের সাথেই রাত্রি যাপন করেছেন। চরফ্যাশন উপজেলার কৃষি কর্মকর্তা আবু হাছনাইন বলেন, ফলে উপজেলার প্রায় ৩৭০ হেক্টর জমির রবিশস্য ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার রুহুল আমীন বলেন, ঢালচর, কুকরি মুকরি ও মজিব নগর ইউনিয়ন থেকে বেশ কিছু ঘরবাড়ী ক্ষয়ক্ষতির তালিকা আসছে বাকী তালিকা আসতে শুরু করেছে।

SHARE

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here