1. admin@dipkanthonews24.com : admin :
মনপুরায় নিষেধাজ্ঞায় ইলিশ না ধরতে জেলেদের জোর প্রস্তুতি - দ্বীপকন্ঠ নিউজ ২৪
শনিবার, ১৮ মে ২০২৪, ০৯:৫৮ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
দুমকী উপজেলা নির্বাচনকে কেন্দ্র করে হামলা-পাল্টা হামলা বাউফলের ধুলিয়া উচ্চ বিদ্যালয় অধ্যক্ষর বিরুদ্ধে ব্যাপক অনিয়মের অভিযোগ ইমতিয়াজ আহমেদ বাবুলকে ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক পদে মনোনয়ন প্রদান দুমকিতে ঘোড়া মার্কার তিন কর্মীকে মারধরের অভিযাগ লালমোহনে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে হামলা, আহত-২ লালমোহনে জোরপূর্বক জমি দখল পরবর্তী সন্ত্রাসী হামলায় আহত-৫ কলাপাড়ায় স্ত্রী কর্তৃক প্রবাসী স্বামীর টাকা আত্মসাতের অভিযোগ লালমোহনের আট ব্যক্তিকে হজ্জে পাঠানোর নামে হাজী কামালের বেপরোয়া অর্থ বানিজ্যর অভিযোগ লালমোহনে দোয়াত কলম সমর্থকদের ওপর হামলার অভিযোগে সংবাদ সম্মেলন কলাপাড়ায় চাঁদা না পেয়ে ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে জখম করার ঘটনায় আদালতে মামলা

মনপুরায় নিষেধাজ্ঞায় ইলিশ না ধরতে জেলেদের জোর প্রস্তুতি

মোঃ ছালাহউদ্দিন, মনপুরা
  • প্রকাশিত : বৃহস্পতিবার, ৬ অক্টোবর, ২০২২
  • ১৫১ বার পঠিত
Spread the love

মোঃ ছালাহউদ্দিন,মনপুরা
আগামী ৭ অক্টোবর থেকে ২৮ শে অক্টোবর পর্যন্ত মোট ২২ দিন ইলিশ আহরন , পরিবহন ও বিক্রয় বন্ধ থাকবে। এই সময় সরাদেশ ব্যাপী ইলিশ আহরন ,বিপনন, ক্রয়-বিক্রয়, পরিবহন, মজুদ ও বিনিয়োগ নিষিদ্ধ।
সরকারের এই নিষেধাজ্ঞা মানতে মনপুরার জেলেরা প্রস্তুতি নিচ্ছেন। যদিও ইলিশ মৌসুমে জেলেরা তেমন কোন ইলিশের দেখা পায়নি। ভরা মৌসুমে জেলেদের জালে ইলিশ ধরা না পড়ায় অধিকাংশ জেলে দায় দেনা জর্জরিত। ৭অক্টোবর থেকে ইলিশ মাছ ধরা বন্ধ হয়ে যাবে। পরিবার পরিজন নিয়ে কিভাবে সংসার চালাবেন তার চিন্তায় এখন জেলেরা হতাশা ভুগছেন। সরকার নিষেধাজ্ঞার সময় জেলেদের বিকল্প কর্মসংস্থানের ব্যাবস্থা না করলে জেলেরা বেকার হয়ে পড়বে। পরিবার পরিজন নিয়ে জেলেরা এখন দুঃচিন্তায় আছেন।
বাংলাদেশ মৎস্য গবেষনা ইনষ্টিটিটের তথ্য অনুযায়ী দেশের মোট মৎস্য উৎপাদনের প্রায় ১২ শতাংশ আসে ইলিশ থেকে। আর সরকারী হিসেবে জিডিপিতে ইলিশের অবদান ১ শতাংশ ।

বাংলাদেশে ২০০৩-২০০৪ সাল থেকে জাটকা রক্ষায় কর্মসূচী শুরু হয়েছে। তার পর থেকেই ধীরে ধীর ইলিশের উৎপাদন বৃদ্ধি পেয়েছে। ইলিশ প্রজনন মৌসুমে ইলিশ মাছ ধরা বন্ধ রাখার জন্য বিজ্ঞানীরা গবেষণা করে দেখতে পান শুধু পূর্ণীমার সময় নয় অমাবস্যাতেও ইলিশ ডিম ছাড়ে। পরে পূর্ণীমার সঙ্গে অমাবস্যা মিলিয়ে মোট ২২ দিন ইলিশ ধরা নিষেধাজ্ঞা দেয় কর্তপক্ষ।

৭ অক্টোবর থেকে ২৮ শে অক্টোবর পর্যন্ত মোট ২২ দিন ইলিশ মাছ আহরন , বিপনন, ক্রয়-বিক্রয়, পরিবহন, মজুদ ও বিনিয়োগ নিষিদ্ধ ঘোষনা করা হয়েছে। সরকারের এই নিষেধাজ্ঞা মানতে এরই মধ্যে উপজেলা প্রশাসন ও মৎস্য দপ্তর বাপক প্রচার প্রচারনা করেন।

এব্যাপারে উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা ভিক্টর বাইন বলেন, সারাবাংলাদেশে মোট ২২দিন ইলিশ আহরন ,বিপনন, ক্রয়-বিক্রয়, পরিবহন, মজুদ ও বিনিয়োগ নিষিদ্ধ। আমরা এই ব্যাপারে ব্যাপক প্রচার প্রচারনা করে জেলেদের সচেতনা করেছি। মেঘনায় আমাদের অভিযান অব্যাহত থাকবে।

Please Share This Post in Your Social Media

আরো পড়ুন
error: Content is protected !!