1. admin@dipkanthonews24.com : admin :
লালমোহনে কবিগানের আসর - দ্বীপকন্ঠ নিউজ ২৪
রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪, ১২:৪৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
লালমোহনে প্রতিপক্ষের হামলায় গর্ভবতী নারীসহ আহত ৩ পাথরঘাটায় “একটু পাশে দাঁড়াই ” সংগঠন এর পক্ষ থেকে ঈদ সামগ্রী বিতরণ লালমোহনে কালবৈশাখী ঝড়ে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবার পেল নগদ অর্থ ও ঢেউটিন লর্ডহার্ডিঞ্জ ইউনিয়ন বাসীকে ঈদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন মো: জসিম উদ্দিন হাওলাদার মনপুরায় ঝড়ে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের মাঝে এমপি জ্যাকবের ৩ লক্ষ টাকা অনুদান বিতরন লালমোহনে মনিরুজ্জামান মনিরের ৫ হাজার শাড়ি লুঙ্গি পেল অসহায় পরিবার লালমোহনে বজ্রপাতে নিহতের পরিবারকে কোস্ট ফাউন্ডেশনের অনুদান হতদরিদ্রদের সরকারি টিসিবির মাল মুদিদোকানে চুরি করে বিক্রি লালমোহনে গরীব ও দুঃস্থরা পেল মনিরুজ্জামান মনিরের ঈদ উপহার লালমোহনে অসহায়-দু:স্থদের মাঝে ঈদ উপহার বিতরণ

লালমোহনে কবিগানের আসর

জাহিদ দুলাল
  • প্রকাশিত : শুক্রবার, ১১ নভেম্বর, ২০২২
  • ৭৯ বার পঠিত
Spread the love

জাহিদ দুলাল, লালমোহন 

ভোলার লালমোহনে চলছে গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যবাহী কবিগানের আসর। উপজেলার পশ্চিম চরউমেদ ইউপির পাঙ্গাশিয়া গ্রামের শ্রী শ্রী কৃষ্ণ কালী মন্দিরের আয়োজনে বিগত বিগত ৪১ বছর ধরে চলে আসছে এ কবিগানের আসর। রাস পূর্ণিমা উপলক্ষে গত বুধবার (৯ নভেম্বর) থেকে শুরু হয় এ কবিগানের আসর। যা চলবে শুক্রবার পর্যন্ত।
৩ দিন ব্যাপী এ আয়োজনের মধ্যে থাকছে কবি গান, আরোতি ও শ্রীমতভগবতপাঠসহ নানা আয়োজন। এছাড়াও ভক্তদের জন্য রয়েছে ২ বেলা প্রসাদের ব্যবস্থা। এ বছরের কবিগগানে অংশ নিয়েছেন কলকাতা থেকে আগত শিল্পী নরেশ সরকার ও উত্তম অধিকারি। প্রতিদিন সকাল ১০ টা থেকে রাত ৯ টা পর্যন্ত চলছে এ আসর।
আয়োজকরা জানিয়েছেন, নতুন প্রজন্মের সাথে ঐতিহ্যবাহী কবিগানের পরিচয় করিয়ে দিতে পূর্ব পুরুষের রীতি অনুযায়ী প্রতিবছর এ আসরের আয়োজন করা হচ্ছে। এ আসরে জেলার বিভিন্ন উপজেলা থেকে বিপুল সংখ্যক পুণ্যার্থী অংশ নিয়েছেন। কবি  গানের এ আসরকে কেন্দ্র করে বসেছে  ছোট ছোট গ্রামীন মেলা। সেখানেও ভীড় জমছে।
উপজেলার পাঙ্গাশিয়া গ্রামের শ্রী শ্রী কৃষ্ণ কালী মন্দিরে গিয়ে দেখা যায়,  ঢোল, বাঁশি, কাসা ও বেহালাসহ বিভিন্ন বাদ্যযন্ত্রের সুরে জমে উঠেছে কবিগান।
এ ব্যাপারে আয়োজক কমিটির সভাপতি ব্রঞ্জকিশোর অধিকারি বলেন,  ৪১ বছরে ধরে আমরা এ মন্দিরে কবিগানের আয়োজন করছি। নিজেদের অর্থায়নেই চলে আসছে এ কবিগানের আসর। সরকারিভাবে এর জন্য বরাদ্দ দিলে গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যবাহী এ কবিগানের আসর টিকিয়ে রাখা সম্ভব হবে।

Please Share This Post in Your Social Media

আরো পড়ুন
error: Content is protected !!