1. admin@dipkanthonews24.com : admin :
বোরহানউদ্দিনে ৫৫ পরিবারের নামে মুজিববর্ষের ঘর ও জমি রেজিস্ট্রি সম্পন্ন - দ্বীপকন্ঠ নিউজ ২৪
বুধবার, ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১০:৫৭ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
ভোলায় ৬ বেসরকারি ক্লিনিক ও হাসপাতালে সিলগালা লালমোহনে এক কেজি গাঁজাসহ মাদক কারবারি আটক লালমোহনে পাঁচ অবৈধ ডায়াগনস্টিক সেন্টার ও হসপিটাল সিলগালা চরফ্যাশনে জেনারেল ডায়াগনস্টিক এন্ড ডক্টরস্ চেম্বার সিলগালা॥ ২০ হাজার টাকা জরিমানা নলসিটিতে মাদ্রাসার জুনিয়র শিক্ষক পদে যোগদান করে অবৈধভাবে সিনিয়র পদে এম,পি,ও ভুক্ত বোরহানউদ্দিনে পুলিশ সপ্তাহ-২০২৪ উপলক্ষ্যে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান লালমোহনে ব্যাপক উৎসাহ উদ্দিপনায় পিঠা উৎসব পালিত কলাপাড়ায় ইউপি সদস্যর উপর হামলা; হাসপাতালে ভর্তি মনপুরায় প্রার্থীদের সাথে আইন শৃঙ্খলা বিষয়ক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত লালমোহনে জাতীয় পরিসংখ্যান দিবস পালিত

বোরহানউদ্দিনে ৫৫ পরিবারের নামে মুজিববর্ষের ঘর ও জমি রেজিস্ট্রি সম্পন্ন

দ্বীপকন্ঠ নিউজ ডেস্ক:
  • প্রকাশিত : রবিবার, ১৯ মার্চ, ২০২৩
  • ৪৭ বার পঠিত
Spread the love

দ্বীপকন্ঠ নিউজ ডেস্কঃ

বোরহানউদ্দিন উপজেলায় মুজিব বর্ষ উপলক্ষ্যে ভূমিহীন ও গৃহহীনদের পুনর্বাসনের লক্ষ্যে ৫৫টি গৃহ নির্মান কাজ সম্পন্ন হয়েছে। ৫৫টি ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারের মাঝে ১৫/০৩/২০২৩ ইং তারিখে কবুলিয়াত দলিল সম্পন্ন করা হয়েছে। উপকার ভোগীদের নামে কবুলিয়াত দলিল সম্পন্ন হওয়ায় তাদের মধ্য আনন্দ বিরাজ করছে । উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নওরীন হক রাত-দিন পরিশ্রম করে ঘরগুলো নির্মান করেন।

জানা যায়, বোরহানউদ্দিন উপজেলায় ১ম পর্যায়ে ২৮টি , ২য় পর্যায়ে ১৬ টি, ৩য় পর্যায়ে ১৪২টিসহ মোট ১৮৬টি গৃহনির্মান করেন। ইতিপূর্বে ১৮৬ টি পরিবারকে পুনর্বাসন করা হয়েছে। ১৮৬টি গৃহহীন ও ভূমিহীন পরিবারের মধ্যে ১ম পর্যায়ে ২৮ টি গৃহের মধ্যে ১৪ টি কুতুবায় এবং ১৪ টি কাচিয়া ইউপিতে। ২য় পর্যায়ে ১৬ টি গৃহের মধ্যে ১৬ টি কুতুবায় ও ছাগলায় এবং ৩য় পর্যায়ে ১৪২ টি গৃহের মধ্যে কুতুবা ৬০টি, কাচিয়া ২১টি, সাচড়া ২১টি এবং টবগী ইউপিতে ৪০টি নির্মান করা হয়েছে। ৪র্থ পর্যায়ে ১০৬ টি গৃহ নির্মান কাজ চলমান রয়েছে। তার মধ্যে ৫২ টি পক্ষিয়া ইউপিতে, ১৪ টি হাসাননগর ইউপিতে, টবগী ৩৬ টি ও কুতুবা ইউপিতে ৪টি নির্মান কাজ চলমান রয়েছে। ৫৫টি গৃহ নির্মান কাজ সম্পন্ন হয়েছে। গৃহ সমুহ মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আগামী ২২/০৩/২০২৩ ইং তারিখে উদ্বোধন করবেন বলে জানা যায়।

উপকার ভোগীরা জানান, তাদের ঘরবাড়ি কিছুই ছিল না। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা তাদেরকে উন্নত মানের পাকাঘর ও জমি দিয়েছেন। ঘর ও জমি পেয়ে তারা অনেক খুশি। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর জন্য সবসময় দোয়া করেন তারা। পক্ষিয়া ইউপি চেয়ারম্যান আলাউদ্দিন সরদার জানান, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা গরিবের কথা চিন্তা করে ঘর ও জমি দিয়েছেন। শেখ হাসিনার সরকার একমাত্র অসহায় ও গরীব মানুষের কথা চিন্তা করেন। শেখ হাসিনার সরকার দেশের উন্নয়ন করেছেন। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর দীর্ঘায়ু কামনা করে দোয়া চান তিনি। উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোঃ সোহেল হোসেন জানান, নির্মাণাধীন বাসগৃহে থাকবে ২টি বেডরুম ১টি রান্না ঘর, একটি বারান্দা ও একটি টয়লেট। এছাড়া দশটি পরিবারের জন্য রয়েছে একটি টিউবওয়েল। বোরহানউদ্দিন উপজেলা নির্বাহী অফিসার নওরীন হক জানান, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণা অনুযায়ী আশ্রয়ণ প্রকল্প ২ এর আওতায় কোন লোক গৃহহীন থাকবে না। তারই ধারাবাহিতায় বোরহানউদ্দিন উপজেলায় ৪থ পর্যায় ৫৫ টি পরিবারের মাঝে ঘর ও জমি দলিল রেজিস্ট্রি করে দেওয়া হয়েছে। এর আগে ১৮৬ জন পরিবারকে মুজিব বর্ষের জমিসহ ঘর প্রদান করা হয়েছে।

Please Share This Post in Your Social Media

আরো পড়ুন
error: Content is protected !!