1. admin@dipkanthonews24.com : admin :
লালমোহনে পুত্রবধূকে বাঁচাতে গিয়ে হাত ভাঙলো মায়ের - দ্বীপকন্ঠ নিউজ
রবিবার, ১৪ জুলাই ২০২৪, ০৫:০৬ অপরাহ্ন

লালমোহনে পুত্রবধূকে বাঁচাতে গিয়ে হাত ভাঙলো মায়ের

দ্বীপকন্ঠ নিউজ ডেস্ক:
  • প্রকাশিত : শনিবার, ২৬ আগস্ট, ২০২৩
  • ১৩০ বার পঠিত
Spread the love

দ্বীপকন্ঠ নিউজ ডেস্কঃ

ভোলার লালমোহনে তুচ্ছ ঘটনা কে কেন্দ্র করে ছোট ভাইয়ের স্ত্রীকে মারধরের সময় তাকে বাঁচাতে গিয়ে মো. মিজান নামে এক ছেলের আঘাতে হাত ভেঙে গেছে বৃদ্ধা মায়ের।
শুক্রবার বিকেলে উপজেলার চরভূতা ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ড ভুইল্যা বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। মো. মিজান ওই বাড়ির মৃত জালাল আহমদের ছেলে। এদিকে ছেলের হামলায় আহত হয়ে লালমোহন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছেন বৃদ্ধা মা হামেলা খাতুন ও তার পুত্রবধূ নুরনাহার (৩০)। হামেলা খাতুন জানান, নুরনাহার তার আরেক ছেলে মো. সিরাজের স্ত্রী। সিরাজ ও মিজান দুই ভাই পরিবার নিয়ে দুই বাড়িতে থাকে। গত কয়েকমাস যাবত সিরাজের স্ত্রী নুরনাহারের বিরুদ্ধে তাবিজ-তুমার করে পরিবার কে নষ্ট করার মিথ্যে অভিযোগ তুলতো মিজান। তারই জের ধরে শুক্রবার বিকেলে মিজান, তার স্ত্রী আমেনা, ছেলে রাহাত ও মেয়ে কুলসুম মিলে নুরনাহারে ঘরে এসে তার উপর অতর্কিত হামলা চালায়। এসময় নুরনাহার একাই ঘরে ছিল। এসময় নুরনাহার কে রক্ষা করতে গিয়ে হামলাকারীদের আঘাতে আমার হাত ভেঙে যায় বলেও অভিযোগ করেন বৃদ্ধা হামেলা খাতুন।
মা ও ছোট ভাইয়ের স্ত্রীর ওপর হামলার বিষয়ে জানতে চাইলে মো. মিজান বলেন, উভয় পক্ষের মধ্যেই মারামারি হয়েছে, তখন হয়তো মায়ের হাতে আঘাত লেগেছে।

এদিকে মা ও স্ত্রীর ওপর হামলার ঘটনায় লালমোহন থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন নুরনাহারের স্বামী মো. সিরাজ।

লালমোহন থানার সাব ইন্সপেক্টর (এসআই) মো. আওয়াল জানান, এই ঘটনায় দুই ভাইয়ের পক্ষ থেকে দুটি অভিযোগ পেয়েছি। ঘটনার তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

Please Share This Post in Your Social Media

আরো পড়ুন
error: Content is protected !!